চট্টগ্রামের সন্দ্বীপ উপকূলে একটি নৌকাডুবিতে নিখোঁজ হওয়া ৩ জেলের সন্ধান পাওয়া গেছে। নোয়াখালীর একটি মালবাহী বোট শুক্রবার (৮ মে) বিকালে তাদের উদ্ধার করে। উদ্ধার হওয়া ৩ জেলে সুস্থ আছেন।

সারিকাইত ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ফখরুল ইসলাম পনির চট্টগ্রাম প্রতিদিনকে এই তথ্য নিশ্চিত করেন।

বৃহস্পতিবার (৭ মে) রাত ১১ টার দিকে মেঘনার উপকূলে মাছ ধরতে গিয়ে ঝড়ো হাওয়ায় নৌকা উল্টে সাগরে নিখোঁজ হন ওই তিন জেলে। শুক্রবার দুপুর পর্যন্ত সাগরেই ছিলেন তারা। দুপুরের দিকে নোয়াখালীর একটি মালবাহী বোট বাহির সাগর এলাকা থেকে তাদের উদ্ধার করে বলে চট্টগ্রাম প্রতিদিনকে জানিয়েছেন স্থানীয় ওয়ার্ড মেম্বার মো. জামসেদ।

‘পরে নোয়াখালীর ওই বোটটি তাদের কুমিরাগামী আরেকটা বোটে তুলে দেয়। বর্তমানে তারা কুমিরাতে আছে। তাদের মধ্যে মনতোষের সাথে আমার কথা হয়েছে। তারা সুস্থ আছেন। কিভাবে তাদের সন্দ্বীপ ফিরিয়ে আনা যায় সে বিষয়ে আমরা কথা বলছি।’ যোগ করেন ওয়ার্ড মেম্বার জামসেদ।

জানা গেছে, সন্দ্বীপ উপজেলার দক্ষিণ পশ্চিম কোণে দূর্গচরণ খাল (প্রকাশ সওদাগর হাট ঘাট) থেকে মেঘনার মোহনায় বৃহস্পতিবার রাতে মাছ ধরতে যায় নৌকাটি। সকালে ভাসমান অবস্থায় নৌকাটি উপকূলে পাওয়া গেলেও নৌকায় থাকা তিন জেলের কোন সন্ধান পাওয়া যায়নি।

নিখোঁজ তিন জেলে হলেন মনতোষ জলদাস, সাদু জলদাস, জহল লাল জলদাস। তারা সারিকাইত ইউনিয়নের ১ নম্বর ওয়ার্ডের জেলে পাড়ার বাসিন্দা।

এদিকে, শুক্রবার (৮ মে) দিনভর নিখোঁজ জেলেদের সন্ধানে নৌকা নিয়ে সাগরে তল্লাশি চালিয়েছেন স্থানীয় চেয়ারম্যান ও কোস্টগার্ডের সদস্যরা।