নরসিংদী সদরে মেয়ের কোর্ট ম্যারেজ করাতে এসে প্রাইভেট কারচাপায় হালিমা আক্তার (৫০) নামে এক নারী নিহত হয়েছেন।

মঙ্গলবার দুপুরে নরসিংদী জেলা কালেক্টরেট ঈদগাহ মাঠে এ দুর্ঘটনা ঘটে। হালিমা আক্তার নরসিংদী সদর উপজেলার মহিষশুরা ইউনিয়নের বিলপাড় এলাকার আবু সিদ্দিক মিয়ার স্ত্রী।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, হালিমা আক্তারের মেয়ে সুমি আক্তারের সঙ্গে শিবপুর উপজেলার দরগাবর গ্রামের হেলাল মিয়ার বিয়ে ঠিক হয়।

গতকাল মেয়ের কোর্ট ম্যারেজের জন্য স্বজনদের নিয়ে নরসিংদী জেলা জজকোর্টে আসেন হালিমা। একপর্যায়ে কোর্টসংলগ্ন একটি গাছের নিচে বসে পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে শলাপরামর্শ করছিলেন তিনি। এ সময় একটি প্রাইভেট কার ওই মাঠে চক্কর দিচ্ছিল। একপর্যায়ে কিছু বুঝে ওঠার আগেই কারটি সজোরে পেছন থেকে এসে তাদের ওপর উঠে যায়। এতে হালিমা ও আরও এক নারীকে টেনেহিঁচড়ে কয়েক মিটার দূরে নিয়ে যায় কারটি। পরে তাদের উদ্ধার করে প্রথমে নরসিংদী সদর হাসপাতাল ও পরে আশঙ্কাজনক অবস্থায় হালিমাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়। এ ছাড়া দুর্ঘটনায় আহত দুই শিশুকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।

নরসিংদী সদর থানার ওসি বিপ্লব কুমার দত্ত চৌধুরী জানান, খবর পাওয়ার পরপরই ঘটনা তদন্তে মাঠে নেমেছে পুলিশ। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে।