কক্সবাজার পৌরসভার প্যানেল মেয়র ও কক্সবাজার জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মাহাবুবুর রহমান মাবুর ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। এতে আহত মাহাবুবকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
বুধবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) বেলা সাড়ে ১১টার দিকে কক্সবাজার পৌরসভার গেইটে এ হামলার ঘটনা ঘটে।
পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, কক্সবাজার পৌরসভার পক্ষে লাইসেন্সবিহীন ব্যাটারিচালিত ইজিবাইক (টমটম) চলাচলে কড়াকাড়ি আরোপ করা হয়। এতে বেশ কিছু লাইসেন্সবিহীন টমটম আটক করা হয়। এর জের ধরে টমটম মালিক সমিতির নেতার পরিচয়ে রুহুল কাদের মানিক নামের এক ব্যক্তির নেতৃত্বে ১০/১৫ জন মানুষ পৌরসভার গেইটে দাঁড়িয়ে হৈ-চৈ শুরু করে।
এসময় কক্সবাজার পৌরসভার প্যানেল মেয়র মাহাবুবুর রহমান তাদের শান্ত হওয়ার অনুরোধ জানালে রুহুল কাদের মানিক প্যানেল মেয়রের উপর হামলা চালান। এতে মাহাবুব আহত হন। ঘটনার পরপর হামলাকারী মানিককে স্থানীয় লোকজন আটক করে পুলিশের কাছে সোপর্দ করে।
কক্সবাজার সদর থানার ওসি শেখ মুনীর উল গিয়াস জানান, এ ঘটনায় একজনকে পুলিশ হেফাজতে চিকিৎসা প্রদান করা হচ্ছে।
এ ঘটনার পর পর কক্সবাজার শহরের দোকান মালিকরা ধর্মঘট শুরু করেছে। একইসঙ্গে শহরে মিছিল সমাবেশ চলছে। কক্সবাজার পৌর আওয়ামী লীগের উদ্যোগে দুপুর দেড়টায় প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তারা এক ঘন্টার মধ্যে মানিককে গ্রেপ্তারের দাবি জানান। অন্যথায় শহরের সকল দোকান, যান চলাচল বন্ধ করে দেয়ার হুমকি দেয়া হয়।
সমাবেশ বক্তারা এখন থেকে কক্সবাজার শহরের সকল প্রকার লাইসেন্সবিহীন টমটম চলাচল করতে দেবে না বলেও ঘোষণা দেন।
কক্সবাজার পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. নজিবুল ইসলামের সভাপতিত্বে প্রতিবাদ সমাবেশে বিভিন্ন পেশাজীবী ও রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ বক্তব্য দেন।